শ্রীনগর সরকারি কলেজে চরম শিক্ষক সঙ্কট

শ্রীনগর সরকারি কলেজে শিক্ষক সঙ্কটের কারণে শিক্ষা কার্যক্রম স্থবির হয়ে পড়েছে। জানা গেছে ২ হাজার ৪৩৮ জন শিক্ষার্থীর জন্য মাত্র ১ জন ইংরেজি শিক্ষক (সহকারী অধ্যাপিকা) রয়েছেন। অন্যদিকে সমাজকল্যাণ বিভাগ চালু আছে কিন্তু কোনো শিক্ষক নেই। কলেজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলাপ করে জানা গেছে, কলেজটিতে সর্বমোট ২৪ জন শিক্ষক পদের ৮টি পদই দীর্ঘদিন যাবত শূন্য। ইংরেজি বিভাগে ৩ জন সহকারী অধ্যাপক ও ২ জন প্রভাষক থাকার সৃষ্টপদ থাকলেও আছেন মাত্র ১ জন। পদোন্নতি ও বদলিজনিত কারণে শিক্ষক সঙ্কট তীব্র হওয়ায় কলেজের ছাত্রছাত্রীরা মারাত্মক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। কলেজ কর্তৃপক্ষও সবগুলো ক্লাস পুরোপুরি চালু ও শিক্ষা কার্যক্রম সচল রাখতে মারাত্মক হিমশিম খাচ্ছে।

গত ২০০৮ সালের ডিগ্রি পাস পরীক্ষায় এ কলেজ থেকে বিবিএস শাখা হতে ৬ শিক্ষার্থী ১ম বিভাগে উত্তীর্ণসহ সারাদেশের মেধা তালিকায় ২য়, ৬ষ্ঠ ও ৯ম স্থান অধিকার করে। ওই বছর পাসের হার ছিল ৯৭ ভাগ। অথচ ২০১০ সালে এইচএসসি পরীক্ষায় পাসের হার বিজ্ঞান, ব্যবসায় শিক্ষা ও মানবিক শাখায় যথাক্রমে ৫০, ৮৫ ও ৫৫ ভাগে দাঁড়িয়েছে।

কলেজের উপাধ্যক্ষ মো. গোলাম কিবরিয়া জানান, এ বছর অনুত্তীর্ণদের অধিকাংশই ইংরেজিতে ফেল করায় কলেজ কর্তৃপক্ষ বিশেষ করে ইংরেজি শিক্ষক স্বল্পতার ব্যাপারে খুবই চিন্তিত। শিক্ষক সঙ্কট দ্রুত দূর না হলে আগামী বছরে এ কলেজের ফলাফলে ব্যাপক ধস নামার আশঙ্কা রয়েছে।

[ad#co-1]