গেরিলা’র সঙ্গীত পরিচালনায় শিমুল ইউসুফ

সম্প্রতি আবারো চলচ্চিত্রের সঙ্গীত পরিচালনা করতে যাচ্ছেন শিমুল ইউসুফ। জানা গেছে, ২০০৯-১০ সালের সরকারী অনুদান প্রাপ্ত চলচ্চিত্র ‘গেরিলা’র সঙ্গীত পরিচালনা করছেন তিনি। মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক এই ছবিটির পরিচালক নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু।

এ প্রসঙ্গে শিমুল ইউসুফ গ্লিটজকে বলেছেন, ‘বেশ কয়েক বছর আগে নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু পরিচালিত ‘একাত্তরের যীশু’ ছবিটির জন্য প্রথম সঙ্গীত পরিচালনা করেছিলাম। এরপর মোর্শেদুল ইসলামের ‘প্রিয়তমেষু’ ছবিতে সঙ্গীত পরিচালনার কাজ করেছি। আর ‘গেরিলা’র মধ্য দিয়ে তৃতীয় বারের মতো পূর্ণ দৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের সঙ্গীত পরিচালনা করছি।’

‘গেরিলা’ ছবির গান প্রসঙ্গে শিমুল জানিয়েছেন, ‘ছবিটির জন্য এখন পর্যন্ত তিনটি গান পরিকল্পনায় রেখেছি। এই তিনটি গানেরই সুর করেছিলেন শহীদ বুদ্ধিজীবী সুরকার আলতাফ মাহমুদ। আর ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিকের ক্ষেত্রে ঘটনার সঙ্গে যায় এমন কিছুই করবো।’

তিনি আরো জানিয়েছেন, ‘ড. এনামুল হক রচিত ‘জয় সূর্যের জয়’, পল্লী কবি জসিমউদ্দিনের লেখা ‘মাঠের পরে ঘর বাঁধিনু’ এবং শহীদ বুদ্ধিজীবী কথা সাহিত্যিক ও নাট্যকার শহীদুল্লাহ কায়সার এর লেখা ‘আমি মানুষ ভাই স্পার্টাকাস’-এই তিনটি গান প্রাথমিক ভাবে চূড়ান্ত করেছি। এই গানগুলোর আরেকটি বিশেষ ব্যাপার হলো, এগুলো আগে কখনো গাওয়া হয়নি। ‘গেরিলা’ ছবির মাধ্যমেই শ্রোতা-দর্শকরা প্রথম বারের মতো এই তিনটি গান শুনতে পারবেন।’

জানা গেছে, ‘গেরিলা’ ছবির পোশাক পরিকল্পনার দায়িত্বও পালন করছেন শিমুল ইউসুফ। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘ছবির পোশাক পরিকল্পনাও আমিই করছি। আমি যেহেতু মুক্তিযুদ্ধকে খুব কাছ থেকে দেখেছি, তাই একাত্তরের স্টাইলটাকেই ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করছি ছবির পাত্র-পাত্রীদের পোশাকের মধ্য দিয়ে। তাছাড়া পাকিস্তানী হানাদার ও রাজাকারদের যেভাবে দেখেছিলাম সেভাবেই ছবির চরিত্রের মানুষগুলোকেও সাজানোর চেষ্টা করছি।’

উল্লেখ্য, এর আগে শিমুল ইউসুফ আরো পাঁচটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের সঙ্গীত পরিচালনা ও পোশাক পরিকল্পনা করেছেন।

[ad#co-1]