বালিগাঁও বাজারে চোরাই কাঠের রমরমা ব্যবসা

কাজী দীপু, মুন্সীগঞ্জ: মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলার বালিগাঁও বাজারে কাঠ ব্যবসার অন্তরালে চলছে চোরাই কাঠের রমরমা ব্যবসা। স্থানীয় ও বরিশাল কাঠ ব্যবসায়ীদের একটি শক্তিশালী সিন্ডিকেট এই ব্যবসা দীর্ঘদিন হতে বীরর্দপে চালিয়ে আসছে। প্রশাসনের চোখে বৃদ্ধ আঙুলি প্রদর্শন করে চোরাই কাঠ নদী ও সড়ক পথে বালিগাঁও বাজারে রাতের আঁধারে ঢুকছে বলে একটি সূত্র দাবি করেছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, দেশের সুন্দরবনের সুন্দরী কাঠসহ বিভিন্ন কাঠ চোরাই পথে আসলেও অজ্ঞাত কারণে প্রশাসন পদক্ষেপ নিচ্ছে না। এ ছাড়া বার্মা ও মালশিয়া হতে আমদানি করা কাঠ ট্রাকে অতিরিক্ত মাল বোঝাই করে বালিগাঁও ঢুকছে। এছাড়া কাঠ ক্রয় ক্ষেত্রে মাপের তারতম্য, সেগুন কাঠের পরিবর্তে একাশিয়া গাছের কাঠ বিক্রি প্রবণতা ও অপরিপক্ক গাছের কাঠ বিক্রির হিড়িক। বালিগাঁও এ বহিরাগতদের উপদ্রব বৃদ্ধির পিছনে বরিশাল কাঠ ব্যবসায়ীদের কর্মচারীদের আত্মীয় স্বজনের পরিচয়ে আশ্রয় নিয়ে বিভিন্ন অপকর্মে জড়িয়ে পড়ছে। এলাকাবাসী বরিশাল কাঠ ব্যবসায়ীদের অবৈধ কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে সংগঠিত হতে শুরু করেছে।

বালিগাঁও বাজারের বরিশাল কাঠ ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মজিবুর রহমান জানান, তিনি এ ধরনের অবৈধ ব্যবসার সঙ্গে জড়িত নেই। তবে অন্য কেউ জড়িত আছে কি না তা সে জানে না। বাজার কমিটির সদস্য সচিব জুলহাস শেখ এ বিষয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি। এ ব্যাপারে টঙ্গীবাড়ী উপজেলার চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার কাজি ওয়াহিদ বলেন, তিনি এ ব্যাপারে কিছু জানেন না। টঙ্গীবাড়ী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ বিষয়টি সম্পর্কে অবগত নন। তবে এ বিষয়ে খতিয়ে দেখবেন বলে জানিয়েছেন।