মুুন্সিগঞ্জে ককটেল বিস্ফোরণে আহত ৫ : গ্রেফতার ৪

নির্বাচনী সহিংসতা
মুন্সিগঞ্জ সদর উপজেলার মোল্লাকান্দি ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রামে আ’লীগের বিবদমান দুই গ্রুপের বিরোধের জের ধরে শুক্রবার রাতে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এতে অন্তত পাঁচজন আহত হয়। আহতদের মধ্যে নাসির (২৬) ও আতিকুরকে (২৮) আশঙ্কাজনক অবস্খায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বাকিরা হচ্ছে জমির (২৫), নাসির (২৪), আবুল (২৬)। তারা গ্রেফতার এড়াতে গোপন স্খানে চিকিৎসা নিচ্ছে বলে জানা গেছে। গতকাল পুলিশ এ ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে মো: হোসেন দীপু (২৫), আবু সাঈদ দেওয়ান (৬২), আবুল বাসার হাওলাদর (৬০) ও জাকির দেওয়ান (৩৫) এই চারজনকে গ্রেফতার করেছে। উপজেলা নির্বাচন নিয়ে মোস্তফা মোল্লা ও শাহ আলম মল্লিকের দু’গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে।
এই সহিংস ঘটনায় চরাঞ্চলের প্রভাবশালী আওয়ামী লীগ নেতা মোস্তফা মোল্লা এবং শাহ আলম মল্লিক গ্রুপের লোকজন একে অপরকে দায়ী করছে। মোস্তফা মোল্লার গ্রুপের লোকজন গ্রামে ফেরার সময় প্রতিপক্ষের কর্মীদের দ্বারা আক্তান্ত হয়। অপর দিকে শাহ আলম গ্রুপের লোকজনের ভাষ্য হচ্ছে, মোস্তফা মোল্লার গ্রুপের লোকজন বোমা তৈরির সময় এই বিস্ফোরণ ও হতাহতের ঘটনা ঘটেছে।
সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবদুল্লাহ জানান, বিস্ফোরণের শব্দ পাওয়া গেলেও ককটেলের কোনো আলামত পাওয়া যায়নি। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। উল্লেখ্য, আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে সাবেক পৌর মেয়র আওয়ামী লীগ নেতা আনিসুজ্জামান প্রার্থী হয়েছেন। আবার তার আপন ভাতিজা ফয়সাল বিপ্লব একই পদে প্রার্থী হওয়ায় চরাঞ্চলে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। এতে দু’গ্রুপের মধ্যে কয়েক দিন ধরে সহিংসতা চলছে। জানা গেছে, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি শাহ আলম মল্লিক ফয়সালের পক্ষে এবং মোল্লাকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তফা মোল্লা আনিসুজ্জামানের পক্ষ অবলম্বন করেছেন।

Leave a Reply