বি চৌধুরীর ৯ দাবি

শামছুদ্দীন আহমেদ: সংসদ ও উপজেলা নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করায় নির্বাচন কমিশনকে (ইসি) ধন্যবাদ জানিয়েছেন বিকল্পধারা প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক বদরুদ্দোজা চৌধুরী৷ তফসিলের পর নির্বাচনি প্রস্তুতি শুরু করায় রাজনৈতিক দলগুলোকেও অভিনন্দন জানান তিনি৷ তবে নির্বাচনকে অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেৰ ও গ্রহণযোগ্য করতে বেশ ক’টি দাবি জানিয়ে তিনি বলেছেন, এসব দাবি অবশ্যই মেনে নিতে হবে৷ এ ব্যাপারে বিকল্পধারা আপস করবে না৷ এছাড়া সাবেক দুই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে প্রাক্তন রাষ্ট্রপতিদেরও সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করা সরকারের উচিত বলে তিনি মন্তব্য করেন৷

গতকাল সেগুনবাগিচায় বিকল্পধারা কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন অধ্যাপক বি চৌধুরী৷ তিনি বলেন, নির্বাচনকে সুষ্ঠু করতে হলে সরকারি প্রশাসনযন্ত্রকে সম্পূর্ণ নিরপেৰ করতে হবে, রাজনৈতিক সরকারের সুবিধাপ্রাপ্তদের নির্বাচন প্রক্রিয়ায় নিযুক্ত করা যাবে না৷ সকল ভোটার যেন নির্ভয়ে ভোট দিতে পারেন সে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে৷

অধ্যাপক চৌধুরী বলেন, সেনাবাহিনী কোনো দলের সম্পত্তি নয়, নির্বাচনে তাদেরও নিরপেৰ থাকতে হবে৷ সকল প্রাথী এবং তাদের পৰে যারা প্রচারণা চালাবে তাদের প্রতেক্যের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণ অপরিহার্য৷ স্বচ্ছ ও নিরাপদে ভোট গণনা এবং দ্রুততম সময়ে ফলাফল ঘোষণার ব্যবস্থাও করতে হবে৷ সংসদ নির্বাচনের পর ঠিক কখন ৰমতা হস্তান্তর হবে তা অবশ্যই স্পষ্ট করা দরকার৷ এছাড়া যেখানেই যে কারো নির্বাচনি সভা, সমাবেশ বা মিছিল হবে সেটির পূর্ণ নিরাপত্তার দায়িত্ব সরকারকেই নিতে হবে৷ কেননা এর আগে মঞ্চসহ বোমা মেরে উড়িয়ে দেয়ার দৃষ্টান্ত রয়েছে৷ এসব দাবি বাস্তবায়নে প্রয়োজনে সরকারকেও চাপ দিতে তিনি ইসিকে পরামর্শ দেন৷

নির্বাচনে অংশগ্রহণের ঘোষণা দিয়ে বিকল্পধারা প্রেসিডেন্ট বলেন, জোট-মহাজোট মাল্টিন্যাশনাল প্রশ্ন৷ নির্বাচনের ব্যাপারে মহাজোটের সব দলের সঙ্গেই আমাদের কথা হচ্ছে৷ সবার সঙ্গে আলোচনা করেই আমরা সিদ্ধান্ত নেব৷ সবই করব নির্বাচনে জেতার জন্য৷ যেখানে যে দলের প্রার্থীর জয়লাভের সম্ভাবনা থাকবে সেখানে তিনিই মনোনয়ন পাবেন৷ আসন ভাগাভাগির ব্যাপারে আমাদের দাবিও থাকবে, ত্যাগ স্বীকারও করব৷ আপাতত এককভাবেই প্রস্তুতি নিয়ে রাখছি৷ তবে অন্তত দেড়শ’ আসনে বিকল্পধারার শক্তিশালী প্রার্থী রয়েছে৷

দলের মহাসচিব মেজর (অব.) আব্দুল মান্নান বলেন, আজ বুধবার থেকে দলীয় মনোনয়ন ফরম বিতরণ শুরু হবে৷ ৮ ও ৯ নভেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাৰাত্‍কার নেয়া হবে৷ মনোনয়নপত্র জমা দেয়া হবে ১১ থেকে ১৩ নভেম্বরের মধ্যে৷ মনোনয়ন ফরম বিক্রি, যাচাই-বাচাইসহ যাবতীয় কাজ করার জন্য দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. নূরুল আমিন বেপারিকে আহ্বায়ক এবং মুখপাত্র মাহী বি চৌধুরীকে সদস্য-সচিব করে ১১ সদস্য বিশিষ্ট স্টিয়ারিং কমিটি গঠন করা হয়েছে৷ এ ব্যাপারে মাহী চৌধুরী বলেন, আগামী শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে কমিটির বিস্তারিত কার্যক্রম তুলে ধরা হবে৷ সম্পাদনা: হুমায়ুন কবির খোকন